ফুটপাতের দোকান থেকে চিতই পিঠা খেতেন সালমান শাহ

ফুটপাতের দোকান থেকে চিতই পিঠা খেতেন সালমান শাহ

বাংলা সিনেমার উজ্জ্বল নক্ষত্র, ক্ষণজন্মা চিত্রনায়ক সালমান শাহ জন্মদিন আজ (১৯ সেপ্টেম্বর)। ১৯৭১ সালের এই দিনে সিলেটের জকিগঞ্জ উপজেলায় জন্মগ্রহণ করেন তিনি। ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর ঢাকার ইস্কাটনে নিজ বাসায় ফ্যানের সঙ্গে তার ঝুলন্ত লাশ পাওয়া যায়।

মৃত্যুর ২৬ বছর পরও কালজয়ী এই নায়ক এখনো সমানভাবে আলোচিত, জনপ্রিয়, প্রাসঙ্গিক। আজও প্রিয় এই নায়কের কথা ভেবে কাঁদেন তার অগণিত ভক্ত। দেশের শোবিজের নায়কদেরও আদর্শ তিনি।

সালমান শাহ উত্তরার ফুটপাতের একটি দোকানের চিতই পিঠা খুব পছন্দ ছিল। এক বয়স্ক নারী বানাতেন সেই পিঠা। সালমান ও ডন মিলে প্রায়ই যেতেন সেখানে। সালমান ওই নারীকে ‘নানি’ সম্বোধন করতেন। এক বসায় একেকজন ৯–১০টি পিঠা খেয়ে ফেলতেন। বিল দিতেন ইচ্ছেমতো, দামের চেয়ে অনেক বেশি। দেখা যেত ৮টি পিঠা খেয়ে ৫০০ টাকা দিয়ে দিতেন। সে সময়ের হিসাবে টাকার পরিমাণ কম ছিল না।” এক সাক্ষাৎকারে কথাগুলো জানান প্রয়াত সালমান শাহর বন্ধু খল অভিনেতা ডন।

১৯৮৫ সালে বিটিভিতে শিশুশিল্পী হিসেবে সালমান শাহর অভিনয় ক্যারিয়ার শুরু হয়। অভিনয় করেছেন টিভি নাটক ও বিজ্ঞাপনে। ১৯৯৩ সালে সোহানুর রহমান সোহান পরিচালিত ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ সিনেমার মধ্য দিয়ে বড় পর্দায় অভিষেক ঘটে অমর এই নায়কের। এতে তার নায়িকা ছিলেন মৌসুমী। প্রথম সিনেমাতেই দর্শকদের মন জয় করে নেন সালমান। এরপর আর পিছু ফিরে তাকাতে হয়নি তাকে।

মাত্র তিন বছরে সালমান শাহ অভিনয় করেছেন ২৭টি সিনেমায়। এর মধ্যে বেশিরভাগ সিনেমাই ছিল হিট। তালিকায় রয়েছে- ‘তুমি আমার’, ‘অন্তরে অন্তরে’, ‘সুজন সখি’, ‘বিক্ষোভ’, ‘স্বপ্নের ঠিকানা’, ‘বিচার হবে’, ‘এই ঘর এই সংসার’, ‘তোমাকে চাই’, ‘স্বপ্নের পৃথিবী’, ‘জীবন সংসার’, ‘আনন্দ অশ্রু’র মতো সিনেমা।

১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর ঢাকার ইস্কাটনের বাসায় সালমান শাহর রহস্যজনক মৃত্যু হয়। পুলিশের একাধিক তদন্ত শেষে বলা হয়, তিনি আত্মহত্যা করেছিলেন। তবে তার পরিবার ও ভক্তরা এই তদন্ত কখনও গ্রহণ করেননি। বরং তাদের দাবি, সালমানকে পরিকল্পিতভাবে খুন করা হয়েছে।




আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Top